ছন্দে ফিরলেন মাহমুদউল্লাহ, জয় পেল গাজী গ্রুপ

0

এফএনএস স্পোর্টস: আসরের দ্বিতীয় ম্যাচেই দারুণ এক ফিফটি। এরপর যেন রান করতেই ভুলে গেলেন মাহমুদউল্লাহ। অবশেষে খেলাঘরের বিপক্ষে ফিরলেন চেনা ছন্দে। অধিনায়কোচিত ইনিংসে জেতালেন গাজী গ্রুপ ক্রিকেটার্সকে। ঢাকা প্রিমিয়ার লিগ টি-টোয়েন্টিতে রোববার খেলাঘর সমাজ কল্যাণ সমিতিকে ৫ উইকেটে হারিয়েছে মাহমুদউল্লাহর দল। মাসুম খানের ৫৯ রানের ইনিংসে ৮ উইকেটে ১৩৮ রান করে খেলাঘর। মাহমুদউল্লাহর অপরাজিত ফিফটিতে ৯ বল আগেই লক্ষ্য ছুঁয়ে ফেলে গাজী গ্রুপ। শেখ জামাল ধানম-ি ক্লাবের বিপক্ষে ৬২ রানের অপরাজিত ইনিংস খেলেছিলেন মাহমুদউল্লাহ। এরপরের পাঁচ ইনিংসে ২০ ছাড়াতে পারেননি একবারও, শূন্য রানে আউট হন দুইবার। খেলাঘরের বিপক্ষে এবার ৩ চার ও ২ ছক্কায় ৪৮ বলে খেললেন ৫৮ রানের ইনিংস। জিতলেন ম্যাচ সেরার পুরস্কার। বিকেএসপির চার নম্বর মাঠে টস জিতে ব্যাটিংয়ে নেমে ধুঁকতে থাকে খেলাঘর। প্রথম চার ব্যাটসম্যানের কেউ পার করতে পারেননি ২০ রান। দুই ওপেনারই হন স্টাম্পড। মেহেদি হাসানের বলে ইমতিয়াজ হোসেন আর নাসুম আহমেদের বলে শাহরিয়ার কমল। গাজী গ্রুপের এই দুই স্পিনারকেই ছক্কায় ওড়ান জহুরুল ইসলাম। তবুও খেলাঘর অধিনায়ক ফেরেন ১৫ বলে ১৩ রান করে। তাকে বিদায় করার পর মেহেদী হাসান মিরাজের উইকেটও নেন মুমিনুল হক। সতীর্থদের আসা-যাওয়ার মাঝে এক প্রান্ত আগলে রাখেন মাসুম খান। বিস্ফোরক ব্যাটিংয়ে করেন টি-টোয়েন্টি ক্যারিয়ারের প্রথম ফিফটি। ৫৯ রানের ইনিংস খেলে রান আউট হন শেষ বলে। ৩৭ বলের তার ইনিংসটি সাজানো ৪ ছক্কা ও ৫ চারে। জবাব দিতে নেমে শুরুটা ভালো হয়নি গাজী গ্রুপের। কোনো রান যোগ হওয়ার আগেই দুই ওপেনারকে হারায় তারা। মেহেদি হাসান ফেরেন রনি চৌধুরির বলে বোল্ড হয়ে, মিরাজের শিকার সৌম্য সরকার। রনিকে ওভারে দুই ছক্কা মেরে শুরুর ধাক্কার চাপ কিছুটা কমান ইয়াসির আলি চৌধুরি। কিন্তু তাকে বেশিক্ষণ টিকতে দেননি মিরাজ। ১৫ বলে ২৪ করেন ইয়াসির। বল হাতে আলো ছড়ানো মুমিনুল ব্যাটিংয়েও পেয়েছিলেন ভালো শুরু। কিন্তু নিজের ইনিংসকে বড় করতে পারেননি বাঁহাতি এই ব্যাটসম্যান। খালেদ আহমেদের বলে ক্যাচ দিয়ে ফেরেন ২০ বলে ২২ রান করে। এরপর দলকে জয়ের পথে টেনে দেন মাহমুদউল্লাহ। তাকে কিছুক্ষণ সঙ্গ দেন আকবর আলি। ১৪ বলে ১৮ করে রান আউটে কাটা পড়েন কিপার-ব্যাটসম্যান। আস্থার সঙ্গে ব্যাটিং করে মাহমুদউল্লাহ ফিফটি স্পর্শ করেন ৪৪ বলে। ১৯তম ওভারের প্রথম বলে মিরাজকে ছক্কা মারেন আরিফুল হক। এক পর এই অফ স্পিনারকে ছক্কায় উড়িয়ে দলকে জয়ের বন্দরে পৌঁছে দেন মাহমুদউল্লাহ। ৮ ম্যাচে এটি গাজী গ্রুপের পঞ্চম জয়, সমান ম্যাচে খেলাঘরের চতুর্থ হার।

সংক্ষিপ্ত স্কোর:

খেলাঘর: ২০ ওভারে ১৩৮/৮ (ইমতিয়াজ ১২, শাহরিয়ার ৪, মিরাজ ৬, জহুরুল ১৩, মাসুম ৫৯, সালমান ১২, ফরহাদ ২০, টিপু ৪, ইফরান ০*; মেহেদি ৪-০-১৯-১, নাসুম ৪-০-২৩-১, মুমিনুল ৩-০-২৭-২, মহিউদ্দদিন ৪-০-২৫-০, মুকিদুল ৪-০-২৭-১, মাহমুদউল্লাহ ১-০-১০-০)।

গাজী গ্রুপ ক্রিকেটার্স: ১৮.৩ ওভারে ১৪৪/৫ (মেহেদি ০, সৌম্য ০, মুমিনুল ২২, ইয়াসির ২৪, মাহমুদউল্লাহ ৫৮*, আকবর ১৮, আরিফুল ১৭*; রনি ৩-১-২০-১, মিরাজ ২.৩-০-২১-২, টিপু ৩-০-২৯-০, ইফরান ৪-০-৩৪-০, খালেদ ৩-০-১৭-১, মাসুম ৩-০-২১-০)।

ফল: গাজী গ্রুপ ক্রিকেটার্স ৫ উইকেটে জয়ী।

ম্যান অব দা ম্যাচ: মাহমুদউল্লাহ।

 

Share.

Leave A Reply