একটা বিশ্বকাপই ‘জীবনে সবকিছু না’

0

এফএনএস স্পোর্টস: বিশ্বকাপে ১০ দলের মধ্যে বাংলাদেশের অবস্থান আটে। বিশ্বকাপের ব্যর্থতায় হতাশ পুরো দেশ। তবে মোসাদ্দেক এ নিয়ে পড়ে থাকতে চান না।

২০১৯ বিশ্বকাপের মাঝামাঝি সময়েও বলা গিয়েছিল, বাংলাদেশ ভালো খেলছে। কিন্তু শেষ দুটি ম্যাচ যেভাবে হারলেন মাশরাফিরা, কিছুতেই বলার উপায় নেই যে বাংলাদেশ এই টুর্নামেন্ট ভালো খেলেছে। ১০ দলের মধ্যে যাদের অবস্থান আটে, শেষ পর্যন্ত বলতেই হচ্ছে ইংল্যান্ড থেকে বাংলাদেশ ফিরেছে বাজে ফল নিয়ে।

বাংলাদেশ দলের ব্যাটিং অলরাউন্ডার মোসাদ্দেক হোসেন মেনে নিলেন নিজেদের ব্যর্থতা। বললেন, ‘বিশ্বকাপটা আমাদের গড়পড়তা গেছে।’ কিন্তু কেন বাংলাদেশ ভালো ফল নিয়ে ফিরতে পারেনি? যে দলটা এই বিশ্বকাপের অন্যতম অভিজ্ঞ দল। যে দলে আছে দুই শর বেশি কিংবা দুই শর কাছাকাছি ওয়ানডে খেলা অন্তত পাঁচজন ক্রিকেটার, যে দল খেলতে গেছে তাদের ইতিহাসের সবচেয়ে সফল অধিনায়কের নেতৃত্বে, তাদের ফল কেন এতটা খারাপ হলো? ২০০৭, ২০১১, ২০১৫ বিশ্বকাপে বাংলাদেশ তিনটি ম্যাচ জিতেছিল। এবারও তাই। এক যুগে তাহলে বাংলাদেশ এগোল কতটা?

বিসিবি নিশ্চয়ই বিশ্বকাপে নিজেদের বাজে ফল নিয়ে ভাবছে। তবে মোসাদ্দেক এ ব্যর্থতা নিয়ে পড়ে থাকতে চান না। গতকাল দুপুরে মিরপুর শেরেবাংলা স্টেডিয়ামে অনুশীলন শেষে একটু দার্শনিক মন্তব্যই করলেন তরুণ অলরাউন্ডার, ‘এটা নিয়ে চিন্তা করলে অনেক কিছু। আবার চিন্তা না করলে কিছু না। জীবনে একটা বিশ্বকাপই সবকিছু না। বিশ্বকাপে শেষ মানে সব শেষ হয়ে গেছে, তা নয়। দিন শেষে আমাদের ক্রিকেট খেলতে হবে। এটা নিয়ে মনে হয় না চিন্তার সময় আছে।’

মোসাদ্দেক বলতে চাইছেন, জীবন প্রবহমান। বিশ্বকাপ ব্যর্থতায় থেমে থাকবে না বাংলাদেশ ক্রিকেট। এই যেমন বিশ্বকাপের রেশ না কাটতেই বাংলাদেশকে যেতে হচ্ছে শ্রীলঙ্কায় তিন ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজ খেলতে। কিন্তু ব্যর্থতা থেকে শিক্ষা নিয়েই তো সফল হতে হয়।

বাংলাদেশ সে শিক্ষাটা কি নিচ্ছে?

 

Share.

Leave A Reply