শিরোপা জয়ের পথে সেরেনা

0

এফএনএস স্পোর্টস: ইউএস ওপেনের মহিলা এককের ফাইনালে উঠেছেন সেরেনা উইলিয়ামস। সেমিতে এলিনা সভিতোলিনাকে ৬-৩, ৬-১ সেটে উড়িয়ে দিয়েছেন তিনি। ৭০ মিনিট। ৪৪ মিনিট। ৬৭ মিনিট।ইউএস ওপেনের শেষ তিন ম্যাচ জিততে ঠিক এই সময় নিয়েছেন সেরেনা উইলিয়ামস। আটকানোই যাচ্ছে না যুক্তরাষ্ট্রের এই তারকাকে। বোঝাই যাচ্ছে, দুরন্ত ফর্মে আছেন তিনি। গতকাল ভোরে (বাংলাদেশ সময়) সেমিফাইনালে পাওয়ার টেনিস দেখা গেল তাঁর কাছ থেকে। ইউক্রেনের তারকা এলিনা সভিতোলিনাকে ৬-৩, ৬-১ সেটে উড়িয়ে দিয়েছেন সেরেনা। ফাইনালে সেরেনার মুখোমুখি হবেন কানাডার তরুণী বিয়াঙ্কা আন্দ্রিস্কু। আরেক সেমিতে সুইজারল্যান্ডের বেলিন্দা বেনচিচকে ৭-৬, ৭-৫ সেমিতে হারিয়েছেন আন্দ্রিস্কু। ফাইনালে জিতলে ২৪টা গ্র্যান্ড স্লাম জেতা হয়ে যাবেন সেরেনা। ইতিহাসে এক মার্গারেট কোর্ট ছাড়া আর কোনো টেনিস তারকার এত গ্র্যান্ড স্লাম শিরোপা নেই। সেমিতে জিততে ৭০ মিনিট সময় নিয়েছেন সেরেনা। ইউএস ওপেনের ফাইনালে এই নিয়ে দশবার উঠলেন তিনি। ওপেন যুগে যে রেকর্ডটা আর কারোর নেই। ২০ বছর আগে ঠিক এই মাসেই ১৭ বছর বয়সী সেরেনা ক্যারিয়ারের প্রথম গ্র্যান্ড স্লাম জিতেছিলেন এই ইউএস ওপেনেই। ১৯৯৯ সালের ১১ সেপ্টেম্বরে। ফাইনালে যে বিয়াঙ্কা আন্দ্রেস্কুর সঙ্গে লড়বেন সেরেনা, সে বিয়াঙ্কার জন্মই হয়েছিল ২০০০ সালের ১৬ জুনে। ওপেন যুগে ১৯৬৮ সালের পর দুই ফাইনালিস্টের মধ্যে এত বয়সের ব্যবধান দেখেনি বিশ্ব। গত ২০ বছরে আরও ৩২ বার গ্র্যান্ড স্লামের ফাইনালে উঠেছেন সেরেনা। আগামি আট তারিখে যে রেকর্ডটা বেড়ে দাঁড়াবে ৩৩-এ। এই ২০ বছরে মহিলা এককের মোট গ্র্যান্ড স্লাম শিরোপার ২৯ শতাংশই জিতেছেন তিনি। সেরেনাকে সর্বসেরা না বলার উপায় কোথায়? এমন কীর্তি যে খোদ রজার ফেদেরারেরও নেই! তবে আন্দ্রেস্কুর বিপক্ষেও হিসাব মেলানোর বাকি আছে সেরেনার। কিছুদিন আগে এই বিয়াঙ্কা আন্দ্রেস্কুর বিপক্ষে রজার্স কাপের এক ম্যাচে চোটে পড়ে বিদায় নিয়েছিলেন তিনি। কানাডার ইতিহাসের প্রথম মহিলা খেলোয়াড় হিসেবে ইউএস ওপেনের ফাইনালে উঠেছেন আন্দ্রেস্কু। টানা ১২ ম্যাচ অপরাজিত থাকা আন্দ্রেস্কু কি সেরেনার বিপক্ষে অভাবনীয় জয় তুলে নিয়ে ক্যারিয়ারের প্রথম গ্র্যান্ড স্লাম শিরোপা জিতে যাবেন? সেটা জানার জন্য অপেক্ষা করতে হচ্ছে শনিবার পর্যন্ত!

Share.

Leave A Reply