যুবাদের প্রস্তুতি ম্যাচ টাই অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে

0

এফএনএস স্পোর্টস: অনূর্ধ্ব-১৯ বিশ্বকাপে নিজেদের প্রথম অফিসিয়াল প্রস্তুতি ম্যাচে অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে টাই করেছে বাংলাদেশ। ফিফটি পেয়েছেন ওপেনার পারভেজ হোসেন এবং দুই মিডল অর্ডার ব্যাটসম্যান শামীম হোসেন ও তৌহিদ হৃদয়। বোলিংয়ে চার উইকেট নিয়েছেন বাঁহাতি পেসার শরিফুল ইসলাম। প্রিটোরিয়ায় সোমবার বৃষ্টির বাধায় প্রস্তুতি ম্যাচের দৈর্ঘ্য নেমে আসে ৪৩ ওভারে। টস জিতে ব্যাট করতে নেমে ৬ উইকেটে ২৫০ রান করে বাংলাদেশ অনূর্ধ্ব-১৯ দল। রান তাড়ায় শেষ বলে ২৫০ রানেই গুটিয়ে যায় অস্ট্রেলিয়া অনূর্ধ্ব-১৯ দল। তানজিদের সঙ্গে ৭০ রানের উদ্বোধনী জুটিতে বাংলাদেশকে ভালো শুরু এনে দেন পারভেজ। পাঁচ চারে ৩৮ বলে ৩২ রান করে তানজিদের বিদায়ে ভাঙে জুটি। বেশিক্ষণ টিকেননি মাহমুদুল হাসান। একটু মন্থর ব্যাটিংয়ে ফিফটিতে পৌঁছানো পারভেজ ২৭তম ওভার শেষে স্বেচ্ছায় মাঠ ছাড়েন। ৮২ বলে খেলা এই ওপেনারের ৫২ রানের ইনিংস গড়া চারটি চার ও দুটি ছক্কায়। পরের ১৬ ওভারে ১৩১ রান যোগ করে বাংলাদেশ। এতে সবচেয়ে বড় অবদান হৃদয় ও শামীমের। একটি করে ছক্কা ও চারে ৫৩ রান করেন হৃদয়। টি-টোয়েন্টি ঘরানার ব্যাটিংয়ে ৩৩ বলে তিনটি করে ছক্কা-চারে ৫৯ রানে অপরাজিত থাকেন শামীম। স্যাম ফ্যানিংয়ের রান আউটে ভাঙে অস্ট্রেলিয়ার ৬৬ রানের উদ্বোধনী জুটি। শুরুর জুটিতে ফ্যানিংই ৫০ বলে করেন ৪৬ রান। টপ অর্ডারের অন্য দুই ব্যাটম্যান লিয়াম স্কট ও ম্যানেঞ্জি হার্ভেকে বিদায় করেন হাসান মুরাদ। মিডল ও লোয়ার অর্ডারে ছোবল দেন শরিফুল। লাচলান ও কোরে কেলির ব্যাটে ৫ উইকেটে ২০৬ রানের দৃঢ় ভিতের ওপর দাঁড়ানো অস্ট্রেলিয়াকে নাড়িয়ে দেন বাঁহাতি এই পেসার। ৪৪ রানে শেষ ৫ উইকেট হারায় অস্ট্রেলিয়া, এর চারটিই নেন শরিফুল। জয়ের জন্য শেষ বলে প্রয়োজন ছিল ২ রান। দ্বিতীয় রান নেয়ার চেষ্টায় রান আউট হয়ে ফিরেন টড মারফি। ৩৯ রানে ৪ উইকেট নেন শরিফুল। বাঁহাতি স্পিনার মুরাদ ২ উইকেট নেন ২৭ রানে। বুধবার নিজেদের দ্বিতীয় ও শেষ প্রস্তুতি ম্যাচে নিউ জিল্যান্ডের মুখোমুখি হবে বাংলাদেশ। শনিবার টুর্নামেন্টে নিজেদের প্রথম ম্যাচে খেলবে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে।

সংক্ষিপ্ত স্কোর:

বাংলাদেশ অনূর্ধ্ব-১৯ দল: ৪৩ ওভারে ২৫০/৬ (তানজিদ ৩২, পারভেজ ৫২, মাহমুদুল ১৫, হৃদয় ৫৩, আকবর ১২, শামীম ৫৯*, অভিষেক ১১, তানজিম ০*; মারফি ২/৩০, স্কট ১/৩৪, উইলিয়ানস ১/৪৯, কেলি ১/৬৬)

অস্ট্রেলিয়া অনূর্ধ্ব-১৯ দল: ৪৩ ওভারে ২৫০ (ফ্যানিং ৪৬, কেলি ৪৪, লাচলান ৪১; তানজিম ৭-১-৩৬-০, শরিফুল ৭-০-৩৯-৪, শাহিন ৫-০-৪৫-১, রকিবুল ৭-০-৪৩-০, মুরাদ ৭-১-২৭-২, অভিষেক ৪-০-২৭-০, শামীম ৩-০-১৬-০, হৃদয় ৩-০-১৫-১)

ফল: টাই

Share.

Leave A Reply