যুদ্ধ প্রশিক্ষণের অংশ হিসেবে পরমাণু ক্ষেপণাস্ত্র ছুঁড়ল রাশিয়া

0

এফএনএস ডেস্ক: রাশিয়া  গতকাল মঙ্গলবার আন্তমহাদেশীয় পরমাণু অস্ত্রবাহী ব্যালিস্টিক ক্ষেপণাস্ত্র তোপোল-এম উৎক্ষেপণ করেছে। রুশ প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় টুইট বার্তায় এ-সংক্রান্ত ফুটেজ প্রকাশ করেছে। রুশ প্লেসেৎস্ক মহাকাশবন্দর বা কসমোড্রোম থেকে এটি ছোঁড়া হয়েছে। যুদ্ধ প্রশিক্ষণের অংশ এ ক্ষেপণাস্ত্র ছুঁড়েছে রুশ বাহিনী। রাজধানী মস্কো থেকে প্রায় ৮০০ কিলোমিটার উত্তরের এ মহাকাশ ছোঁড়া ক্ষেপণাস্ত্র কামচাটকায় উপদ্বীপের লক্ষ্যবস্তুতে আঘাত হানে। লক্ষ্যবস্তুতে আঘাত হানতে নকল বা বিস্ফোরকহীন বোমা ব্যবহার করা হয়েছে। তোপোল-এম ক্ষেপণাস্ত্রের উড্ডয়ন দক্ষতা সম্পর্কে নিশ্চিত হওয়ার জন্য একে ছোঁড়া হয়েছে। ১৯৮০ দশকের শেষে এবং ১৯৯০এর দশকের প্রথম দিকে কৌশলগত আন্তমহাদেশীয় ব্যালিস্টিক ক্ষেপণাস্ত্র তোপোল-এমকে তৈরি করা হয়। সোভিয়েত ইউনিয়ন ভেঙ্গে যাওয়ার পর প্রথম এ ক্ষেপণাস্ত্র তৈরি করে রাশিয়া।

তোপোল-এম ক্ষেপণাস্ত্র ৮০০ কিলোটন একটি পরমাণু বোমা বহন করতে পারে। এ বোমার ধ্বংস ক্ষমতা ৮ লাখ টন টিএনটি বা ডিনামাইটের সমান। অর্থাৎ ১৯৪৫ সালে নাগাসাকির ওপর যে আণবিক বোমা আমেরিকা ফেলেছিল তোপোল-এমের ধ্বংস ক্ষমতা তার চেয়েও ৪০ গুণ বেশি।

Share.

Leave A Reply