ছেলেকে নিয়ে আইসক্রিমের দোকানে ট্রুডো

0

এফএনএস বিদেশ : প্রাণঘাতী করোনার কারণে বিশ্বজুড়েই এক মহামারি পরিস্থিতি তৈরি হয়েছে। তবে কঠোর বিধি-নিষেধ মেনে চলার কারণে অনেক দেশই এর মধ্যেই সুফল পেতে শুরু করেছে। সেখানে করোনা পরিস্থিতি অনেকটাই নিয়ন্ত্রণে চলে এসেছে। যেসব দেশে করোনার সংক্রমণ এর মধ্যেই কমতে শুরু করেছে সেসব দেশে লকডাউন কিছুটা শিথিল করে স্বাভাবিক কাজকর্মে ফিরতে শুরু করেছে মানুষ। কানাডাতেও লকডাউন শিথিল হয়েছে। ফলে জনজীবনে কিছুটা স্বস্তি ফিরে এসেছে। এমন পরিস্থিতিতে নিজের ছেলেকে নিয়ে কিছুটা সময় বাইরে কাটালেন কানাডার প্রধানমন্ত্রী জাস্টিন ট্রুডো। একটি আইসক্রিমের দোকানে গিয়ে ছেলেকে নিয়ে আইসক্রিম কিনেছেন তিনি। এরপরেই বাবা-ছেলে মিলে আইসক্রিম খেয়েছেন। তবে বাইরে বের হলেও যথেষ্ট নিয়ম কানুন মেনে চলতে দেখা গেছে ট্রুডোকে। ছেলে-সহ তাকে মাস্ক পরেই কিউবেক প্রদেশের গাতিনিউয়ের একটি আইসক্রিমের দোকানে ঢুকতে দেখা গেছে। ট্রুডোর ছেলে হাড্রিয়েনের বয়স ছয় বছর। বাবা-ছেলে চকলেট ফ্লেভারের আইসক্রিম দারুণ উপভোগ করেছেন। গত মার্চের মাঝামাঝি থেকেই কানাডার বিভিন্ন প্রদেশ এবং অঞ্চলে জরুরি অবস্থা জারি করা হয়। সব স্কুল এবং অপ্রয়োজনীয় ব্যবসা প্রতিষ্ঠান বন্ধ করে দেওয়া হয়। মহামারি পরিস্থিতি ঠেকাতে সব ধরনের কঠোর বিধি-নিষেধ জারি করেছে কানাডা। এর সুফলও পেয়েছে দেশটি। অনেক শক্তিশালী দেশ যখন করোনার সঙ্গে পেরে উঠছে না তখন কানাডায় করোনা পরিস্থিতি অনেকটাই নিয়ন্ত্রণে রয়েছে। সে কারণেই দেশটি ধীরে ধীরে লকডাউন তুলে নেওয়ার পরিকল্পনা করছে।

 

Share.

Leave A Reply