আমাদের কাছে আমলা পিতৃতুল্য: ডু প্লেসিস

0

এফএনএস স্পোর্টস: আন্তর্জাতিক ক্রিকেট থেকে অবসরের ঘোষণা দিয়েছেন দক্ষিণ আফ্রিকার কিংবদন্তি ব্যাটসম্যান হাশিম আমলা। অবসর ঘোষণার পর থেকেই সামাজিক যোগযোগের মাধ্যমগুলো তাকে নিয়ে সরগরম। তার প্রতি ভালোবাসা ও শ্রদ্ধা জ্ঞাপন করছেন সাবেক ও বর্তমান ক্রিকেটার থেকে শুরু করে ক্রিকেটভক্তরা।

১৫ বছরের ক্যারিয়ারে ১৮ হাজার ৬০০ রান, রেকর্ড ৫৫টি সেঞ্চুরি এবং ৮৮টি হাফ-সেঞ্চুরি নামের পাশে যুক্ত করেছেন আমলা। প্রথম ও একমাত্র প্রোটিয়া ব্যাটসম্যান হিসেবে টেস্টে ট্রিপল সেঞ্চুরি হাঁকানোর কীর্তি তার দখলে। এ ছাড়া দক্ষিণ আফ্রিকার টেস্ট ইতিহাসে দ্বিতীয় সর্বোচ্চ রানের রেকর্ড তার। ১২৪ টেস্টের ক্যারিয়ারে তার সংগ্রহ ৯ হাজার ২৮২ রান, গড় ৪৬.৪১। সেঞ্চুরি হাঁকিয়েছেন ২৮টি আর হাফ-সেঞ্চুরি ৪১টি।

আমলার দখলে আছে দ্রুততম সময়ে ২ হাজার থেকে (প্রতি হাজারে একটি করে রেকর্ড) ৭ হাজার রানের মাইলফলকে পৌঁছানোর অনন্য কীর্তি। ৮ হাজার ১১৩ রান নিয়ে তার ওয়ানডে ব্যাটিং গড় ৫০ ছুঁইছুঁই আর স্ট্রাইক রেট ১০০। ২৭টি সেঞ্চুরি আর ফিফটি ৩৯টি। এমন অবিশ্বাস্য ক্যারিয়ার তাকে দক্ষিণ আফ্রিকার ইতিহাসের সবচেয়ে সেরা ব্যাটসম্যানদের একজন হিসেবে প্রতিষ্ঠিত করেছে। আইসিসি ওয়ানডে ও টেস্ট দুই র‌্যাংকিংয়েরই শীর্ষে জায়গা করে নেওয়ার কীর্তিও গড়েছিলেন তিনি।

তবে মাঠের চেয়ে বাইরের আমলাকেই সবাই বেশি মনে রাখবে। তার শান্ত ও ভদ্র স্বভাবের কারণেই তিনি ক্রিকেটভক্তদের মনে আজীবনের জন্য বিশেষ আসন ধরে রাখবেন। দীর্ঘ পথচলার ইতি টানার মুহূর্তে আমলা বলেন, ‘এই অসাধারণ ভ্রমণে আমি অনেক কিছু শিখেছি, অনেক বন্ধু বানিয়েছি এবং সবচেয়ে বড় কথা প্রোটিয়া দলের সঙ্গে ভ্রাতৃত্বপূর্ণ ভালোবাসা শেয়ার করেছি।’

সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যমে অনেকেই আমলাকে বিদায়ী শুভেচ্ছা জানিয়েছেন। দক্ষিণ আফ্রিকার ক্রিকেট বোর্ড (সিএসএ) তাদের অফিসিয়াল টুইটার পেইজে এক এক টুইটে লিখেছে, ‘তিনি (আমলা) দেশের হয়ে একমাত্র ট্রিপল সেঞ্চুরি করেছেন। এ ছাড়া দেশের জার্সিতে ইংল্যান্ড, ভারত ও ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে সর্বোচ্চ টেস্ট ইনিংসের মালিক হয়েছেন। ধন্যবাদ হাশিম আমলা।’

সাবেক প্রোটিয়া অধিনায়ক এবি ডি ভিলিয়ার্স লিখেছেন, ‘অবিশ্বাস্য ক্যারিয়ার হাশিম আমলা। শুরুতে তোমাকে নিয়ে অনেকেই শঙ্কা প্রকাশ করেছিল, কিন্তু তোমার লড়াই করা মানসিকতা, মানবিকতা এবং অসাধারণ প্রতিভা তোমাকে পাহাড়ের চূড়ায় তুলেছে এবং বিশ্বের অন্যতম সেরা বানিয়েছে।’

সাবেক পাকিস্তানি ফাস্ট বোলার শোয়েব আখতার লিখেছেন, ‘সবধরনের ক্রিকেট থেকে অবসরের ঘোষণা দিয়ে বিশ্বকে চমকে দিয়েছে হাশিম আমলা। কি অসাধারণ কিংবদন্তি এবং কি অসাধারণ মানুষ এবং খেলাটির অসাধারণ মুখপাত্র। তোমার প্রতি অনেক সম্মান আর শুভকামনা রইলো।’

সাবেক ভারতীয় পেস অলরাউন্ডার ইরফান পাঠান লিখেছেন, ‘নিউজিল্যান্ডে অনুষ্ঠিত অনূর্ধ্ব-১৯ বিশ্বকাপে প্রথমবারের মতো তার (আমলা) বিপক্ষে খেলেছিলাম। আমাদের বিপক্ষে অসাধারণ এক ইনিংস খেলে নিজের জাত চিনিয়েছিল সে। অবশ্যই সে তার আন্তর্জাতিক ক্যারিয়ার শেষ করেছে দক্ষিণ আফ্রিকা ক্রিকেটের অন্যতম সেরা হিসেবে। শুভ অবসর, হাশিম আমলা ভাই।’

সাবেক প্রোটিয়া অধিনায়ক ও অলরাউন্ডার শন পোলক লিখেছেন, ‘অসাধারণ এক ক্যারিয়ারের জন্য হাশিম আমলাকে অভিনন্দন। ৯০ দশকের শেষ দিকে কিংমিডের নেটে দেখার পর থেকে শুরু করে তোমার যাত্রাটা ছিল অসাধারণ। দারুণ করেছো। শ্রদ্ধা রইলো।’

দক্ষিণ আফ্রিকার বর্তমান অধিনায়ক ফাফ ডু প্লেসিস তো আমলাকে পিতার আসনেই বসিয়ে ফেললেন, ‘মহান হাশিম আমলা, আমাদের দলের পিতৃতুল্য একজন। অনেক অভিজ্ঞতা, অনেক ন¤্রতা, সবসময় তোমার মুখে হাসি লেগেই থাকে এবং আমি যতটুকু মনে করতে পারি তুমি ছিলে আমাদের ব্যাটিং লাইনআপের শক্তি। তোমার কিংবদন্তিতুল্য ক্যারিয়ারের জন্য অভিনন্দন এবং ধন্যবাদ। আমরা অবশ্যই তোমাকে মিস করব।’

এছাড়া আমলার বিদায় নিয়ে টুইট করেছেন রবি শাস্ত্রী, মোহাম্মদ হাফিজ, সাকলাইন মোশতাক, আজহার মাহমুদ, মার্ক বাউচারসহ আরও অনেকে। টুইট করে বিদায়ী শুভেচ্ছা জানিয়েছে আইসিসি, আইপিএলের ফ্র্যাঞ্চাইজি কিংস ইলেভেন পাঞ্জাবও।

Share.

Leave A Reply